সুখ তুমি কী?

” … সুখ তুমি কী? …”

রঙ-ঢঙ ডেস্ক

হায় হায় করে কিছু হবে না; ট্যাঁকে যা আছে, তা নিয়েই সুখে থাকুন!

প্রায় ৮৫ শতাংশ মত দিয়েছেন— ‘স্বাস্থ্যই সকল সুখের মূল’। কেউ কেউ আবার বলেছেন (৮১ শতাংশ), একটা ভালো সম্পর্ক বা বিবাহবন্ধনও মানুষকে সুখী করে। ৭৯ শতাংশ জানিয়েছেন, ভালো কাজ করলে সহজেই সুখী হওয়া যায়।

সুখ নিয়ে আমেরিকানদের দর্শন পাল্টাচ্ছে। সাম্প্রতিক অর্থনৈতিক পরিস্থিতি তাদের এ পরিবর্তনের কারণ বলে মানছেন কেউ কেউ। ‘দ্য লাইফ টুইস্টে’র এক গবেষণায় ধরা পড়েছে চিন্তার পরিবর্তনটি। সেখানে দেখা গেছে, অনেকে মনে করেন, সুখের সঙ্গে সম্পদ-সম্পত্তির কোনো সম্পর্ক নেই! তবে প্রতি চারজনের একজন অর্থাৎ ২৭ শতাংশ মার্কিন এখনো মনে করেন, সম্পদ বা অর্থ-বিত্ত মানুষের সফলতা নির্ধারণ করে। এ সমীক্ষায় দুই হাজার আমেরিকান অংশ নেয়।

গবেষণায় দেখা যায়, প্রায় ৮৫ শতাংশ মত দিয়েছেন— ‘স্বাস্থ্যই সকল সুখের মূল’। কেউ কেউ আবার বলেছেন (৮১ শতাংশ), একটা ভালো সম্পর্ক বা বিবাহবন্ধনও মানুষকে সুখী করে। ৭৯ শতাংশ জানিয়েছেন, ভালো কাজ করলে সহজেই সুখী হওয়া যায়। ৭৫ শতাংশ বলেছেন, ভালো কিংবা পছন্দের চাকরি সুখ বয়ে আনে। তবে জীবনে সফল বা সুখী হতে হলে উন্মুক্ত ও উদার মানসিকতা খুবই গুরুত্বপূর্ণ— একবাক্যে প্রায় সবাই মানেন এ কথা।

এছাড়া ডজন খানেক গবেষণায় দেখা গেছে, সুখ-সফলতা নিয়ে মার্কিনদের ভেতর নতুন ধারণ তৈরি হচ্ছে। তাদের বিশ্বাস, সুখী হতে টাকা-পয়সা তেমন গুরুত্বপূর্ণ নিয়ামক নয়। অর্থনৈতিক মন্দা ও বেকারত্বের হার বাড়ার কারণে তাদের চিন্তাভাবনায় নতুন এ ধারণা সৃষ্টি হয়েছে। ৪৩ শতাংশ বলেছেন, তারা সবাই আর্থিক দুরবস্থার তিক্ত অভিজ্ঞতার শিকার। ফলে জীবন সম্পর্কে তাদের নতুন দর্শন তৈরি হয়েছে। ৪২ শতাংশ বলছেন, নানা সমস্যা-প্রতিবন্ধকতা তাদের চোখ খুলে দিয়েছে। টাকা-পয়সা থাকলেই সুখী হওয়া যায় না— এমন ধারণা বদলে যাওয়ার ক্ষেত্রে মাত্রাতিরিক্ত কাজের চাপও বড় ভূমিকা পালন করেছে। ১০ জনের আটজন কর্মজীবী মত দিয়েছেন, প্রচণ্ড কাজের চাপ ও তুলনামূলক কম বেতনের কারণে তাদের জীবনটা চিঁড়েচ্যাপ্টা!

হাফিংটন পোস্টের প্রেসিডেন্ট ও প্রধান সম্পাদক আরিয়ানা হাফিংটন বলেছেন, টাকা ও ক্ষমতা থাকলেই সে সফল— এ ধারণা বদলে দেয়া প্রয়োজন। হাফিংটন ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল ব্লগে লিখেছেন, বাকি জীবনে নতুন উদ্যমে নিজেকে ফিরে পেতে, কাজে আনন্দ পেতে নিজেদের কল্যাণ, স্বাস্থ্য ও সামর্থ্যের ওপর ভিত্তি করে সফল হওয়ার তৃতীয় কোনো পদ্ধতি বের করা প্রয়োজন। আসলে টাকা আর ভালো অবস্থান থাকলেই জীবনে সফল হওয়া যায় না।

২০০৫-এর অন্য একটি গবেষণায় দেখা যায়, সুখী মানুষ সবসময় কাজকর্মে, সম্পর্ক গড়ার ক্ষেত্রে ও সুস্বাস্থ্য অর্জনে সফলতা পায় (এবং তাদের ঘুমও ভালো হয়!)। এসব গবেষণার পরিপ্রেক্ষিতে বলতে হয়— হায় হায় করে কিছু হবে না; ট্যাঁকে যা আছে, তা নিয়েই সুখে থাকুন!

Advertisements

তথ্য কণিকা Jahan Hassan জাহান হাসান
Ekush, Publisher/Editor/ Hollywood media hyphenate/ একুশ নিউজ মিডিয়া, লিটল বাংলাদেশ, লস এঞ্জেলেস / 1 818 266 7539 / FB: JahanHassan

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s