৮ মাসে ৮০ ব্রোকারেজ হাউজের অনিয়ম তদন্ত ।। বাড়ছে অনৈতিক কার্যক্রম

৮ মাসে ৮০ ব্রোকারেজ হাউজের অনিয়ম তদন্ত ।। বাড়ছে অনৈতিক কার্যক্রম

আমিরম্নল ইসলাম নয়নঃ ব্রোকারেজ হাউজগুলোর বিরম্নদ্ধে অনৈতিক কার্যক্রমে জড়িয়ে পড়ার অভিযোগ দিন দিন বাড়ছে। ইদানীং এর মাত্রা একটু বেশি হওয়ায় এসইসিকে বাজার নিয়ন্ত্রণের পাশাপাশি এসব হাউজের অনিয়ম নিয়ন্ত্রণ করতে বেশ বেগ পেতে হচ্ছে। গত ৮ মাসে ৮০ ব্রোকারেজ হাউজ ও ১ মাসে প্রায় ৩০-এর অধিক ব্রোকারেজ হাউজ মার্জিন লোন আইন ভঙ্গসহ নানা অপকর্মে জড়িয়ে পড়েছে। এসইসি এর মধ্য গত ১ মাসে ১৩ ব্রোকারেজ হাউজকে কারণ দর্শানোর নোটিশ পাঠিয়েছে। পাশাপাশি একটি হাউজকে আর্থিক জরিমানাও করেছে।

জানা গেছে শর্টসেল, জমাকৃত অর্থের চেয়ে অতিরিক্ত শেয়ার ক্রয়, নির্ধারিত হারের চেয়ে বেশি মার্জিন ঋণ প্রদান, অনুমোদিত শেয়ারে আর্থিক সমন্বয় (নেটিং) সুবিধা প্রদানসহ ব্রোকারেজ হাউজের অবৈধ কর্মকা ৈপ্রায় নিয়মিত ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছে। এসইসির সার্ভিল্যান্স বিভাগের পরিদর্শন কার্যক্রমে চিহ্নিত হচ্ছে একের পর এক অনিয়ম। গুরম্নতর অনিয়মের কারণে বেশ কয়েকটি হাউজের বিরম্নদ্ধে বড় ধরনের শাস্তিôমূলক ব্যবস্থাও নিয়েছে এসইসি। এরপরও প্রতি মাসেই এ ধরনের অনিয়ম চিহ্নিত হওয়ার সংখ্যা বাড়ছে বলে সংশিস্নষ্ট সূত্রে জানা গেছে।

শেয়ার বিজে্‌র অনুসন্ধানে দেখা গেছে, আমাদের দেশের অধিকাংশ ব্রোকারেজ হাউজ বিনিয়োগকারীদের সঙ্গে পুলিশি আচরণ করে। টাকা দিয়ে ব্যবসা করতে এসে সারাদিন দাঁড়িয়ে থেকে এমনকি চাপাচাপি করে ট্রেড করতে হয়। আবার অনেক সময় হাউজ কর্তৃপড়্গের রোষানলে পড়ে কথা শুনতে হয়। আবার অনেক ব্রোকারেজ হাউজের বিরম্নদ্ধে বিনিয়োগকারীদের বিও অ্যাকাউন্ট থেকে টাকা সরিয়ে শেয়ার ব্যবসা করার অভিযোগ রয়েছে। সম্প্রতি এসইসি বিনিয়োগকারীদের অভিযোগ আমলে আনতে ডিএসইকে একটি অভিযোগ সেল গঠন করতে বলেছে। যা ইতিপূর্বে গঠন করা হয়েছে। তবে এ অভিযোগ সেলের কার্যকারিতা নিয়ে বিনিয়োগকারীদের মনে যথেষ্ট সন্দেহ রয়েছে। এ ব্যাপারে সার্প সিকিউরিটিজের পরিচালক মেজর সৈয়দ গোলাম ওয়াদুদ (অব·) শেয়ার বিজ্‌ কড়চাকে বলেন, বিনিয়োগকারীরা এখন সেবা চায়। যে হাউজ যত ভালো সার্ভিস দিতে পারবে সেখানে তত বেশি সংখ্যক বিনিয়োগকারী ট্রেড করতে আসবে। তবে বিশ্বের কয়েকটি দেশে গিয়ে আমি দেখেছি ব্রোকারেজ সেবা কতো উন্নত মানের। আমাদের এখানে যার সামান্যতম নেই। এসইসি সূত্রে জানা গেছে, ঢাকা ও চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের আওতাধীন বিভিন্ন ব্রোকারেজ হাউজের অনিয়ম নিয়ে বর্তমানে প্রায় ৮০টির মতো তদন্তô কাজ চলছে। চলতি বছরের এপ্রিল মাসে ৭টি, মে মাসে ৫টি, জুন মাসে ৮টি এবং জুলাই মাসে ৪টি ব্রোকারেজ হাউজের অনিয়ম চিহ্নিত করা হয়েছে। এর মধ্যে বিভিন্ন অনিয়মের কারণে আরাফাত সিকিউরিটিজকে ৩ বার জরিমানা করা হয়েছে। এর আগে চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে মার্চ পর্যন্তô ৩ মাসে অনিয়মের কারণে ২৯টি ব্রোকারেজ হাউজকে সতর্ক করা হয়েছে। একই সময়ে জরিমানা করা হয়েছে ২টি হাউজকে।

এসইসি সূত্রে জানা গেছে, বিভিন্ন সময়ে বড় ধরনের অনিয়ম করায় গত জুলাই মাসে ডিএসইর সদস্য ট্রাস্টি অ্যাসোসিয়েশন, আরাফাত সিকিউরিটিজ, এভার স্মার্ট লিমিটেড, এমএইচ সিকিউরিটিজ, প্র্রিমিয়ার ব্যাংক ব্রোকারেজ হাউজ, হাজী আহমেদ ব্রাদার্স সিকিউরিটিজ লিমিটেড, সিটি ব্যাংক ব্রোকারেজ হাউজ, লংকাবাংলা সিকিউরিটিজ, জেকেএস সিকিউরিটিজ, আজম সিকিউরিটিজ, দিয়া সিকিউরিটিজ, কাজী শোয়েব রশীদ ক্যাপিটাল, হেদায়েতউলস্নাহ সিকিউরিটিজ, শ্যামল ইকুøইটি ম্যানেজমেন্ট, আল মুনতাহা টেড্রি, শার্প সিকিউরিটিজ, পিএফআই সিকিউরিটিজ এবং সিএসইর সদস্য ট্রেন্ডসেট সিকিউরিটিজ লিমিটেডকে পৃথকভাবে জরিমানা, সতর্ক ও শোকজ করা হয়।

গত মাসের ২৭ অক্টোবর অনৈতিকভাবে মার্জিন ঋণ প্রদানে অনিয়মের প্রমাণ পাওয়ায় সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (এসইসি) ১৩ ব্রোকারেজ হাউজকে শোকজ ও শুনানিতে তলব করেছে। শোকজে ডাকা হাউজগুলো হলো- সাদ সিকিউরিটিজ, আরাফাত সিকিউরিটিজ, রাস্টি সিকিউরিটিজ, ফারইস্ট স্টক অ্যান্ড বন্ড, শ্যামল ইকুøইটি ও ইউনিরয়েল সিকিউরিটিজ হাউজ। কবির সিকিউরিটিজ, জেআইসি সিকিউরিটিজ, গেস্নাব সিকিউরিটিজ, গেটওয়ে ইকুøয়িটি অ্যান্ড রিসোর্স, তমা সিকিউরিটিজ ও কাজী সিকিউরিটিজকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়েছে। সম্প্রতি সফটওয়্যার জনিত সমস্যার কারণে গ্রাহকদের শেয়ার লেনদেন নিষ্পত্তি করতে না পারায় আইল্যান্ড সিকিউরিটিজকে দেড় লাখ টাকা জরিমানা করেছে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)।

Advertisements

তথ্য কণিকা Jahan Hassan জাহান হাসান
Ekush, Publisher/Editor/ Hollywood media hyphenate/ একুশ নিউজ মিডিয়া, লিটল বাংলাদেশ, লস এঞ্জেলেস / 1 818 266 7539 / FB: JahanHassan

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s