বর্তমান শেয়ারবাজারে ‘৯৬ সালের ঘটনার পুনরাবৃত্তি হওয়ার কোনো আশঙ্কা নেই

৩ মাসের মধ্যে ছাড়া হবে ২৬ কম্পানির শেয়ার’
শেয়ারবাজার অতিমূল্যায়িত নয়, অতিমাত্রায় চাঙ্গা’
কালের কণ্ঠ প্রতিবেদক
আগামী তিন মাসের মধ্যে বহুল আলোচিত ২৬ সরকারি কম্পানির শেয়ার বাজারে ছাড়ার ঘোষণা দিলেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। গতকাল দেশের অর্থনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে আয়োজিত এক মতবিনিময় সভায় শেয়ারবাজারের বর্তমান অবস্থা নিয়ে বক্তব্য রাখতে গিয়ে অর্থমন্ত্রী এ ঘোষণা দিয়ে বলেন, ‘শেয়ারবাজার অতিমাত্রায় চাঙ্গা। কিন্তু অতিমূল্যায়িত নয়। বেশ জোরেশোরে এর প্রবৃদ্ধি হচ্ছে। তবে তাতে ‘৯৬ সালের মতো অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটার কোনো আশঙ্কা নেই।’

দেশের বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমের অর্থনৈতিক রিপোর্টারদের সংগঠন ইকোনমিক রিপোর্টার্স ফোরাম (ইআরএফ) এ সভার আয়োজন করে। জাতীয় প্রেস ক্লাবে অনুষ্ঠিত এ সভায় অন্যান্যের মধ্যে ইআরএফ সভাপতি মনোয়ার হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক আবু কাওসার বক্তব্য দেন। বর্তমান শেয়ারবাজার অতিমূল্যায়িত কি না_এক সাংবাদিকের এ প্রশ্নের উত্তরে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘আমি মনে করি না শেয়ারবাজার অতিমূল্যায়িত। এটি অতিমাত্রায় চাঙ্গা। সঞ্চয়সহ দেশের বিভিন্ন খাত থেকে শেয়ারবাজারে টাকা যাচ্ছে। এই মুহূর্তে বাজারকে স্থিতিশীল করতে প্রয়োজন শেয়ারের সরবরাহ বাড়ানো। সরকার এ ব্যাপারে খুবই আন্তরিক। এ নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। আশা করছি, শিগগিরই সরকারি কম্পানির শেয়ারবাজারে ছাড়া সম্ভব হবে। এ নিয়ে শিগগিরই সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে বৈঠকে বসব।’ তিনি বলেন, ‘দীর্ঘদিন ঝুলে থাকা ২৫-২৬টি সরকারি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার বাজারে আনতে প্রধানমন্ত্রী নিজে উদ্যোগ নিয়েছেন। আশা করছি, আগামী তিন মাসের মধ্যে এ সব কম্পানির শেয়ার বাজারে আনা সম্ভব হবে।’

আরেক প্রশ্নের উত্তরে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘বর্তমান শেয়ারবাজারে ‘৯৬ সালের ঘটনার পুনরাবৃত্তি হওয়ার কোনো আশঙ্কা নেই। আমাদের শেয়ারবাজার এখন অনেক পরিপক্ব। সব কিছু হয় কম্পিউটারে। এখানে কারসাজির কোনো সুযোগ নেই। এ ছাড়া শেয়ারবাজারের নীতিনির্ধারণী ফোরাম, ব্যবস্থাপনা ও ট্রেডিং সিস্টেমকে এখনই পুরোপুরি পৃথক করা বা ‘ডিমিউচ্যুলাইজেশন’ সম্ভব নয়। এজন্য আরো সময়ের প্রয়োজন।’

শেয়ারবাজারে সরবরাহ বাড়াতে কিছু আইনের সংশোধনের প্রয়োজনীয়তার কথাও উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘এর আগে আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম ৪০ কোটি টাকার কম মূলধনের কোনো কম্পানিকে তালিকাভুক্ত করা হবে না। পরে দেখলাম এতে বেশ কিছু বীমা কম্পানির তালিকাভুক্তি আটকে গেল। তখন এই আইন সংশোধনের প্রয়োজন দেখা দেয়। সম্প্রতি এসইসি সিদ্ধান্ত নিয়েছে ৩০ কোটি টাকা মূলধনের কম্পানিও বাজারে তালিকাভুক্ত হতে পারবে। এসইসির আইন সংশোধনের বিষয়টি নিয়ে কয়েকদিনের মধ্যে বসব।’

Advertisements

তথ্য কণিকা Jahan Hassan জাহান হাসান
Ekush, Publisher/Editor/ Hollywood media hyphenate/ একুশ নিউজ মিডিয়া, লিটল বাংলাদেশ, লস এঞ্জেলেস / 1 818 266 7539 / FB: JahanHassan

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s

%d bloggers like this: