এমএলএম কোম্পানির নীতিমালা প্রণয়নে আজ বৈঠক

এমএলএম কোম্পানির নীতিমালা প্রণয়নে আজ বৈঠক
স্টাফ রিপোর্টার, যুগান্তর ॥
প্রতারণা ঠেকাতে মাল্টিলেভেল মার্কেটিং (এমএলএম) কোম্পানিগুলোর জন্য দেশে প্রথমবারের মতো প্রস্তাবিত খসড়া নীতিমালার ওপর আজ সোমবার বাণিজ্য মন্ত্রণালয় কোম্পানির প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠক করতে যাচ্ছে। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কৰে বেলা ১১ টায় এ সভা অনুষ্ঠিত হবে। এতে অংশ নিতে পারেন ২০/২২টি এমএলএম কোম্পনির প্রতিনিধিরা। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে এ তথ্য।

সংশ্লিষ্টরা জানান, খসড়া নীতিমালায় প্রাথমিকভাবে ১৩টি বিষয় অন্তর্ভুক্ত করলেও গত ৪ অক্টোবর আনত্মঃমন্ত্রণালয় সভায় ৯টি বিষয়কে অন্তর্ভুক্ত করে খসড়া চূড়ান্ত করা হয়। এতে বেশকিছু বিষয় বাদ দেয়া হয়েছে ও পরিবর্তন আনা হয়েছে। চূড়ান্ত খসড়ায় বলা হয়েছে, মাল্টি লেভেল মার্কেটিং কোম্পানি পণ্য ও সেবা উভয় প্রকার ব্যবসা করতে পারবে। সকল ডিরেক্ট সেলিং বা এমএলএম কোম্পানিকে জামানত দিতে হবে। যৌথ মূলধন কোম্পানি ও ফার্মগুলোর পরিদফতর কী পদ্ধতিতে এবং কোন খাতে গ্রহণ করবে সে বিষয়ে নির্দেশনা প্রদান করবে। ডিরেক্ট সেলিং বা এমএলএম কোম্পানি ব্যবসায়ের ৰেত্রে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ২০০৯ এবং কম্পিটিশন এ্যাক্ট ২০১০ (প্রণীতব্য) পরিপূর্ণভাবে মেনে চলতে বাধ্য থাকবে। কোম্পানি নতুন পরিবেশক হওয়ার সময় কী ধরনের চার্জ নেবে তা তাদের প্রণীত নীতিমালায় সুনির্দিষ্ট ও যৌক্তিকভাবে উলেস্নখ থাকতে হবে।
নীতিমালায় আরও বলা হয়েছে, পরবতর্ী সিদ্ধানত্ম না নেয়া পর্যনত্ম ভোক্তা অধিকার সংরৰণ অধিদফতর কেন্দ্রীয়ভাবে জেলা প্রশাসন জেলা পর্যায়ে ও ইউএনও উপজেলা পর্যায়ে এমএলএম কোম্পানিগুলোর কার্যাবলী পর্যবেৰণ করবে। পণ্য অথবা সেবা বাজারজাতকরণের পূর্বে সেসব পণ্য ও সেবার গুণগতমানের সনদ সরকার নির্ধারিত সংশিস্নষ্ট প্রতিষ্ঠান থেকে নিতে হবে। ডিরেক্ট সেলিং বা এমএলএম কোম্পানিগুলো তাদের বাজারজাত পণ্যের গায়ে পণ্যের উৎপাদনের তারিখ, মেয়াদ উত্তীর্নের তারিখ ও মূল্য প্রকাশের ব্যাপারে ভোক্তা অধিকার সংরৰণ আইন ও প্রচলিত সংশিস্নষ্ট আইন মেনে চলবে। সেবার ৰেত্রেও সংশিস্নষ্ট প্রচলিত আইন মেনে চলতে হবে। বাণিজ্য মন্ত্রণালয় এ সকল নীতিমালা বাসত্মবায়নের ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য আইন প্রণয়নের উদ্যোগ গ্রহণ করবে। ডিরেক্ট সেলিং বা এমএলএম কোম্পানি এ আইন মেনে চলতে বাধ্য থাকবে। সংশিস্নষ্টরা জানান, নীতিমালার বেশকিছু বিষয়ে আপত্তি রয়ে গেছে। বৈঠকে এ বিষয়গুলো উঠে আসবে। এমএলএম প্রতিষ্ঠানের জন্য জামানত প্রথাকে অযৌক্তিক বলে মনে করা হচ্ছে। এর সঙ্গে যুক্ত সাধারণ লোকদের স্বার্থে এমএলএম প্রতিষ্ঠান নতুন পরিবেশক হওয়াকালীন সময়ে সার্ভিস চার্জ, সিকিউরিটি মানি ও ট্রেনিং ফি ইত্যাদির নামে যে অতিরিক্ত অর্থ নেয় তা নিষিদ্ধ করতে হবে। এ সম্পর্কে নীতিমালায় কিছু উলেস্নখ নেই। নীতিমালায় এমএলএম কোম্পানিগুলোর আমানত সংগ্রহের অবৈধ ব্যাংকিং বন্ধে খসড়া নীতিমালায় কোন বিধান রাখা হয়নি। বাংলাদেশে নিবন্ধনবিহীন ই-কমার্স বা ইন্টারনেটভিত্তিক এমএলএম কোম্পানির কার্যক্রম বন্ধের বিষয়ে খসড়া নীতিমালায় কোন বিধান রাখা হয়নি। এছাড়া আগের খসড়া নীতিমালায় কোম্পানিগুলোকে বাধ্যতামূলকভাবে ইলেকট্রনিক ক্যাশ রেজিস্টার ব্যবহার করার বিধান রাখা হলেও চূড়ানত্ম খসড়ায় তা বাদ দেয়া হয়েছে। এতে করে সরকার বিপুল পরিমাণের রাজস্ব আয় বঞ্চিত হবে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। উলেস্নখ্য, দেশে এমএলএম ব্যবসার শুরম্নর এক দশক পর প্রথমবারের মতো একটি নীতিমালা করতে যাচ্ছে সরকার। সংশিস্নষ্টরা জানান, ভারত, মালয়েশিয়া, যুক্তরাজ্য ও যুক্তরাষ্ট্রসহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে এমএলএম ব্যবসা পরিচালনার ৰেত্রে সরকারী নীতিমালা ও গাইড লাইন রয়েছে এবং তা কঠোরভাবে অনুসরণ করা হয়। অথচ আমাদের দেশে এ ব্যবসা শুরম্নর এক দশক পেরিয়ে গেলেও কোন নীতিমালা করা হয়নি। নীতিমালা না থাকায় কোন কোন কোম্পানি ইচ্ছামতো শর্ত যুক্ত করে প্রতারণার ফাঁদ ফেলেছে। ফলে এ ব্যবসার সঙ্গে সংযুক্ত হয়ে প্রতারণার শিকার হয়েছেন সাধারণ অনেক মানুষ। কয়েকটি কোম্পানি সাধারণের গচ্ছিত কোটি কোটি টাকা আত্মসাত করে ব্যবসা গুটিয়ে ফেলেছে।

২০০২ সালে মাল্টি লেভেল কোম্পানির সংখ্যা ছিল ১৬টি। ২০০৬ সালে এর সংখ্যা দাঁড়ায় ২৪টিতে। সর্বশেষ ২০১০ সালে যৌথ মূলধন কোম্পানি ও ফার্মগুলোর পরিদফতরের তথ্য অনুযায়ী দেশে এখন এমএলএম কোম্পানির সংখ্যা ৭০টি। তবে বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়, দেশে এখন ৩৩টি কোম্পানি কার্যকর আছে। বাকিগুলো প্রতারণাসহ বিভিন্ন কারণে বন্ধ হয়ে গেছে।

Advertisements

তথ্য কণিকা Jahan Hassan জাহান হাসান
Ekush, Publisher/Editor/ Hollywood media hyphenate/ একুশ নিউজ মিডিয়া, লিটল বাংলাদেশ, লস এঞ্জেলেস / 1 818 266 7539 / FB: JahanHassan

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s

%d bloggers like this: